Skip to content

বুলগেরিয়া টুরিস্ট ভিসা

বুলগেরিয়া টুরিস্ট ভিসা

বন্ধুরা, আজকে আপনাদের জানাব বুলগেরিয়া টুরিস্ট ভিসা  সম্পর্কে । আপনারা যারা ইউরোপ এর দেশ

বুলগেরিয়া ঘুরার জন্য যেতে চান তারা এই লেখার মাধ্যমে বিস্তারিত ভাবে জানতে পারবেন যে আপনারা

কিভাবে যেতে পারেন। তাই এই লেখা টি আপনাদের জন্য খুবি গুরুত্বপূর্ণ । কারন এই লেখার মাধ্যমে

আপনারা জানতে পারবেন টুরিস্ট ভিসার জন্য আবেদন কিভাবে করা যায় আর কত দিন থাকা যায় এই

সকল বিষয় জানা আপনাদের জন্য খুবি জরুরি। আর এই লেখর মাধ্যমে আজকে  এই সকল বিষয়

আলোচনা করতে চলেছি। আর এখন বর্তমান সময় বুলগেরিয়া থেকে বিশ্বের অনেক দেশে যাওয়া যায়। আর

এই সকল দেশে বাংলাদেশ থেকে যাওয়ার সুযোগ নাই । তাই বাংলাদেশ থেকে অনেক মানুষ বুলগেরিয়া যায়

তারপরে অন্য দেশে যাওয়ার জন্য প্রস্তুতি নেয়। তাই ইউরোপ এর যে সকল দেশে বাংলাদেশ থেকে যাওয়া

যায়না সেই সকল দেশে যাওয়ার জন্য আগে আপনাকে বুলগেরিয়া যেতে হবে। তাই আপনারা যারা

বুলগেরিয়া যাওয়ার কথা ভাবছেন তারা বুলগেরিয়া টুরিস্ট ভিসা  নিয়ে বুলগেরিয়া যেতে পারেন। আর তাই

এই লেখার মাধ্যমে আপনারা অনেক কিছু জানতে পারবেন –

বুলগেরিয়া টুরিস্ট ভিসা

বুলগেরিয়া টুরিস্ট ভিসা : আপনারা যারা বুলগেরিয়া টুরিস্ট ভিসা করতে চান তাদের অনেক নিয়ম মেনে

তার পরে সাবধানতার সাথে আপনাকে ভিসা টি করতে হবে। আর আপনার এই ভিসা করতে একটি ছয় মাস

মেয়াদী পাসপোর্ট লাগবে। আর পাসপোর্ট করার পরে আপনাকে বুলগেরিয়ার যে যাবেন তারা জন্য একটি

হোটেলের আর বিমান টিকিট সহ আরও অনেক কিছু প্রয়োজন হবে টুরিস্ট ভিসা করার জন্য। আর এই

ভিসা টি হতে আপনার ২৭ দিন এর মত সময় লাগবে । তার পরে আপনাকে ইমেইল করে জানানো হবে যে

আপনি টুরিস্ট ভিসা নিয়ে বুলগেরিয়া যেতে পারবেন কিনা। আর এই ভিসা টি এপ্রুভাল হওয়ার পর বাকি

কাজগুলো আপনি সম্পন্ন করতে পারবেন।

বুলগেরিয়া টুরিস্ট ভিসায় যেতে কি কি কাগজপত্র প্রয়োজন

বুলগেরিয়া টুরিস্ট ভিসায় যেতে কি কি কাগজপত্র প্রয়োজন : যারা টুরিস্ট ভিসা নিয়ে বুলগেরিয়া

যাবেন তাদের ভিসার জন্য আবেদন করার আগে কিছু রিকোয়ারমেন্ট আছে তা মেনে আপনাকে ভিসার

জন্য আবেদন করতে হবে। আর তারপরে আবেদন করার জন্য আপনার কিছু কগজপত্র লাগবে। আর

আপনাদের যে সকল কগজপত্র প্রয়োজন হবে তাহল , ছয় মাস মেয়াদী একটি পাসপোর্ট লাগবে , পাসপোর্ট

সাইজের দুই কপি ছবি লাগবে, হোটেল বুকিং এর প্রমান হিসেবে বুকিং এর ফটোকপি লাগবে, আপনার

এনআইডি কার্ডের ফটোকপি লাগবে আর আপনার ছয় মাস এর ব্যাংক স্টেটমেন্ট প্রয়োজন হবে আর

আপনি যদি এর আগে কোন জায়গায় ট্রাভেল করেন তরা প্রমান পত্র লাগবে। আপনারা যারা বুলগেরিয়া

টুরিস্ট ভিসা নিয়ে যাবেন তাদের এই সকল কাগজপত্র প্রয়োজন হবে। আর এর পরেও যদি কোন কাগজপত্র

লগে তাহলে আপনি যে এজেন্সির মাধ্যমে যাবেন তারা আগে থেকেই আপনাকে জানিয়ে দিবে। আশা করি

আপনারা কি কি কাগজপত্র লগবে বুঝতে পেরেছেন।

টুরিস্ট ভিসায় গিয়ে কত দিন থাকতে পারবেন

টুরিস্ট ভিসায় গিয়ে কত দিন থাকতে পারবেন : আপনারা যারা টুরিস্ট ভিসা নিয়ে বুলগেরিয়া যাবেন

তারা যাওয়ার পরে থাকার জন্য সময় পাবেন ৩০ থেকে ৯০ দিন পর্যন্ত। আর যদি অন্য ভিসা নিয়ে যান

তাহলে অনেক দিন থাকতে পারবেন যেমন আপনি যদি ওয়ার্ক পারমিট নিয়ে যান তাহলে আপনি ২

-৪-৬-৮ বছর এর জন্য ভিসা করতে পারবেন। আপনারা যদি টুরিস্ট ভিসা নিয়ে যান তাহলে বেশি থাকতে

পারবেন না । আশা করি আপনারা যারা টুরিস্ট ভিসা নিয়ে যাবেন তারা বুঝতে পেরেছেন।

উপসংহার

আজকে আপনাদের সম্পন্ন জানানো চেষ্টা করেছি বুলগেরিয়া টুরিস্ট ভিসা সম্পর্কে । আপনারা যারা এই

ভিসা নিয়ে যাবেন তারা এই লেখা থেকে অনেক উপকৃত হইবেন আশা করি। আর এর পরেও যদি

আপনাদের কিছু জানার থাকে তাহলে কমেন্ট করে জানাবেন। আমরা তার উত্তর দিয়ে জানিয়ে দিব। আমরা

সব সময় বিদেশের ব্যাপারে তথ্য দেওয়ার চেষ্টা করি। তাই যারা বিদেশের ব্যাপারে জানতে চান তারা আমার

সাইট থেকে জানতে পারবেন। তাই আপনারা একবার হলেও আমার ওয়েবসাইটে ভিজিট করুন আর

সবগুলো লেখা দেখতে থাকুন। আর কিছু লেখার লিংক আপনাদের জন্য নিম্নে দিয়ে দিলাম। প্রয়োজন মনে

করলে পড়তে পারেন। আশা করি কাজে লাগবে। সবাইকে ধন্যবাদ জানিয়ে আজকের মত এখানেই শেষ

করছি। ভুলত্রুটি খুব সুন্দর দৃষ্টিতে দেখবেন। আল্লাহ হাফেজ।

আরো একই বিষয়ে পড়তেঃ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Social Share Buttons and Icons powered by Ultimatelysocial