গরমে ত্বকের যত্নে কি ব্যবহার করবেন?

গরমে ত্বকের যত্নে কি ব্যবহার করবেন: গরমে ত্বকের যত্ন আমরা সবাই কম বা বেশি নিয়ে থাকি কিন্তু  শীতকালের আর গরমকালের ঋতুভেদে ত্বকের যত্ন ও ভিন্ন। এ সময় আমাদের শরীরে প্রচুর ঘাম হয় এবং মুখ হয়  তৈলাক্ত। আবার আমরা যদি বাহিরে যাই তাহলে শরীরের মুখের ত্বক কালো হয়ে যায়। আমরা আমাদের সারাদিনের কর্মব্যস্ততা এড়াতে পারবোনা। তার জন্য এমন কিছু টিপস দরকার যেটা খুব সহজে ঘরেই ব্যবহার করা যায়। চলুল আজ কিছু ঘরোয়া টিপস ফলো করে  আপনাদের ত্বক ভাল রাখা যায় কি ভাবে সে বিষয়য়ে বিস্তারিত আলোচনা করবো কি ভাবে গরমে ত্বকের যত্নে কি ব্যবহার করবেন।

গরমে ত্বকের যত্ন কি?

"<yoastmark

আমরা সকলেই চাই আমাদেরকে সুন্দর ও আকর্ষণীয় দেখা যাক।  কিন্তু সঠিক উপায় না জানার কারণে আমাদের ত্বক নষ্ট হয়ে যাচ্ছে দিন দিন। বেড়ে যাচ্ছে  আমাদের মুখে ব্রণ ও কালো দাগ। আমাদের মুখের ত্বক হয়ে যাচ্ছে দিন দিন  ফ্যাকাশে ও রুক্ষ। বর্তমানে ত্বক নিয়ে আমরা  নানাবিধ সমস্যায় ভুগে থাকি । আসুন খুব সহজেই কি ভাবে ঘরে থাকা উপকরণ দিয়ে আমাদের ত্বক উজ্জল ও প্রানবন্ত করতে হয় সে বিষয়টি জেনে নেই।

  দুধ, শসা ও মধু দিয়ে ত্বকের যত্ন

দুধ, শসা ও মধু দিয়ে ত্বকের যত্ন
দুধ, শসা ও মধু দিয়ে ত্বকের যত্ন

ত্বকের যত্নে নিতে শসা আমাদের অনেক গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে। তা ছাড়া দুধ আমাদের শরীর ফর্সা ফর্সা করার কাজে বিশেষ অবদান রাখে । প্রথমে আমরা ১ টি শসা নিব, শসার সাথে দুধ বা গুড়া দুধ নিব এগুলো ভালভাবে মিশানোর পর এক টেবিল চা-চামচ মধু ও লেবুর রস দিয়ে ভালোভাবে মেশাতে হবে । তারপর সারা মুখে, হাতে, গলায় লাগিয়ে শুকানোর জন্য অপেক্ষা করুন। ভালোভাবে শুকিয়ে গেলে ঠাণ্ডা পানিতে ধূয়ে নিন। এর পর নরম তোয়ালে দিয়ে মুছে নিতে হবে। এভাবে যদি আপনি ত্বকের যত্ন নেন তাহলে দেখবেন আপনার ত্বক সুন্দর ও নরম হয়ে যাবে।

ত্বকের যত্ন নিতে এলোভেরা

"<yoastmark

এটা আমাদের জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ উপাদান। অ্যালোভেরা ব্যবহার করার সময় আমাদের খেয়াল রাখতে হবে যেন অ্যালোভেরার সবুজ অংশ থেকে বের হওয়া সবুজ আঠার মতো অংশ নেয়া যাবেনা। বাড়িতে যদি অ্যালোভেরা না থাকে তাহলে দোকান থেকে  অ্যালোভেরা জেল নিতে পারবেন। এই জেল অথবা এলোভেরা  মুখে লাগিয়ে শুকিয়ে যাওয়া পর্যন্ত অপেক্ষা করুন, এবং ভালভাবে শুকানোর পর ঠাণ্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে নিতে হবে । এটা ব্যবহারের পরেই আপনি বুঝতে পারবেন এর উপকারিতা। যা আপনাকে দিবে  ত্বকের উজ্জ্বলতা এবং  প্রাণবন্ত ।

ত্বকের যত্নে বেকিং সোডা

ত্বকের যত্নে বেকিং সোডা
ত্বকের যত্নে বেকিং সোডা

আমরা জানি বেকিং সোডা ব্যবহার করা হয় খাবার তৈরিতে কিন্তু আজ আমি আপনাদের যে তথ্য দিব তা শুনে আপনারা অবাক হয়ে যাবেন। তবে চলুন কিভাবে এটা ব্যবহার করে আপনার ত্বক তেকে দূর করবেন তৈলাক্ত ভাব। প্রথমে ৩ টেবিল চামচ দুধ নিয়ে তার সাথে ১ টেবিল চামচ বেকিং সোডা দিয়ে ভালোভাবে মিশিয়ে নিতে হবে। এর পর সেই মিশ্রণটি গলা ও মুখে লাগিয়ে রাখুন । এবং ভালভাবে  শুকিয়ে গেলে ঠাণ্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলতে হবে দেখবেন আপনার ত্বক তৈলাক্ত ভাব কমে যাবে।

ত্বকের যত্নে কলা

ত্বকের যত্নে কলা
ত্বকের যত্নে কলা

অনেক সময় আমরা সময়ের অভাবে খাবার খেতে ভুলে যাই। এটা কিন্তু আমাদের ত্বকের মারাত্মক ক্ষতি করে। আর এই ক্ষতি কর সমস্যাটি সহজেই দূর করতে পারি ঘরে থাকা  কালো হয়ে যাওয়া কলাটি দিয়ে । আসলে আমরা আজ কলা দিয়ে ফেসপ্যাক বানাতে হয় তা শিখে নিব। প্রথমে একটা কলা নিয়ে তারপর এক টেবিলচামচ মধু ও কয়েক ফোঁটা লেবুর রস নিয়ে ভালোভাবে মিশিয়ে সেগুলো  মুখে ও গলাতে ভালভাবে লাগাতে হবে এরপর ২০ মিনিট পর ধুয়ে ফেলুন। আর আপনি লক্ষ্য করুন আপনার ত্বক কত সুন্দর হয়েছে।

ত্বকের যত্নে টমেটো

ত্বকের যত্নে টমেটো
ত্বকের যত্নে টমেটো

টমেটো দিয়ে ত্বকের যত্ন নিতে জুড়ি মেলা ভার। এই গরমে যদি সপ্তাহে একবার টমেটো মুখে লাগান তাহলে আপনার ত্বকে অনেক উপকার পাবেন। প্রথমে টমেটো নিন তারপর মাঝখানে কেটে দুই টুকরা করুন ২ টুকরো মুখে  মাখুন এরপর ১৫ মিনিট পর ধুয়ে ফেলুন। তারপর আপনি বুঝতে পারবেন আপনার ত্বকের পরিবর্তন।

ত্বকের যত্নে অলিভ অয়েল

ত্বকের যত্নে অলিভ অয়েল
ত্বকের যত্নে অলিভ অয়েল

শীত ছাড়াও যাদের ঠোঁট ফেটে যায় । তারা অলিভ অয়েল ব্যবহার করতে পারেন। একটু অলিভ অয়েল তেল ও মধু মিশিয়ে সারারাত ত্বকে লাগিয়ে রাখুন, আর সকালে দেখতে পারবেন এর চমক, এটা ব্যবহার করার ফলে আপনার ঠোট হবে  নরম তুলতুলে এতে করে  আপনাকে অনেক সুন্দর লাগবে।

ত্বকের ব্রণ কমাতে লেবুর ব্যবহার

ত্বকের ব্রণ কমাতে লেবুর ব্যবহার
ত্বকের ব্রণ কমাতে লেবুর ব্যবহার

লেবু যে কি পরিমাণ উপকার করে আমাদের তা আপনি জানলে অবাক হবেন। আপনি যদি লেবুর রস, মধু ও দুধ একসাথে মিশিয়ে মুখে ব্যবহার করেন তবে আপনার মুখের কালো দাগ ,ব্রন, ফুসকুড়ি কমিয়ে দিবে এবং ত্বক হবে লাবণ্যময় প্রানোজ্জল। একবার ব্যবহার করলে আপনি বার বার ব্যবহার করতে চাবেন।

ত্বক ফর্সা করতে চালের ব্যবহার

ত্বক ফর্সা করতে চালের ব্যবহার
ত্বক ফর্সা করতে চালের ব্যবহার

 আমরা অনেকে না বুছে বাজার থেকে নানা প্রকারের ক্যামিক্যাল কিনে মুখের রং ফর্সা করার জন্য ব্যবহার করে থাকি তার জন্য অনেক সময় হিতে বিপরিত হয়ে মুখে দেখা দেয় নানান রকমের মেছতা এবং ব্রণের দাগ।  কিন্তু আপনি যদি একটু সচেতন হন তাহলেই বাড়ীতেই বানিয়ে ফেলতে পারেন রং ফর্সা কারী ক্রিম। তবে চলুন কিভাবে এটা করা যায়। আতপ চাল বা  চিনিগুড়া চালের গুড়া, বেসন,কর্নফ্লাওয়ার ও পরিমাণমতো দুধ পানিতে মিশিয়ে মুখে লাগাতে হবে এরপর শুকনো পর্যন্ত অপেক্ষা করুন এবং এরপর ধুয়ে ফেলুন দেখবেন এর ফলাফল অনেক ভাল ।

চোখের নিচে কালো দাগ দূর করতে আলুর ব্যবহার

কালো দাগ দূর করতে আলুর ব্যবহার
কালো দাগ দূর করতে আলুর ব্যবহার

সাধারণত আমরা যদি রাত জেগে কাজ করি, এবং কোনো দুশ্চিন্তা করি তবে আমাদের চোখের নিচে কালো দাগ হয়। এই সমস্যা সমাধান করার জন্য যদি আলু পাতলা করে কেটে এক ঘণ্টা ফ্রিজে নরমালে রেখে সেটা ৩০ মিনিট চোখের উপর রেখে দেই তাহলে আমরা এই সমস্যা থেকে সমাধান পেতে পারি আমাদের চোখ অনেক সুন্দর লাগবে।

পরিশেষে

আমরা বলতে পারি আপনার ত্বক আপনার সৌন্দর্য। আর এটাকে ধরে রাখুন এবং সবার কাছে থাকুন সবসময় আকর্ষণীয়। সবাই চায় তার নিজেকে যেন আকর্ষণীয় দেখায়। আমাদের নির্দেশিকা অনুযায়ী আপনার ত্বক কেমন হয়েছে আমাদেরকে কমেন্ট সেকশনে জানাবেন, এবং পরবর্তীতে আরো সুন্দর সুন্দর লেখা আপনাদেরকে উপহার দিব।  ধন্যবাদ আপনাদের কষ্ট করে পড়ার জন্য।

অন্যান্য বিষয়:

১.বেষ্ট ফ্রেন্ড স্ট্যাটাস।

২. বাচ্চাদের চুলকাটার স্টাইল।

Leave a Reply

Your email address will not be published.