Trending

রোমানিয়া থেকে ইউরোপে ইতালি,ফ্রান্স,পর্তুগাল যাওয়ার উপায়

Romania thaka urop

রোমানিয়া থেকে ইউরোপে : যারা এশিয়ার বিভিন্ন দেশ থেকে রোমানিয়া যায়, তাদের মূল উদ্দেশ্য থাকে সেনজেনভুক্ত

ইউরোপের যে কয়েকটি উন্নত দেশ আছে সেই দেশে প্রবেশ করার। আর রোমানিয়া হচ্ছে সেই দেশে প্রবেশ করার একটি

মাধ্যম মাত্র । অনেকেই রোমানিয়া গিয়ে অল্প কিছুদিনের মধ্যে সেই স্বপ্নের দেশে পালিয়ে যাওয়ার জন্য চেষ্টা করেন।

আজকে তাদের উদ্দেশ্য বিস্তারিতভাবে আলোচনা করব। আপনি কি কি উপায়ে কোন কোন দেশে যেতে পারবেন। সেই সব

বিষয় নিয়ে আমাদের এই আলোচনা থাকবে বিস্তারিত। এছাড়াও আমাদের আরো কয়েকটি লেখা আছে, যেখানে রোমানিয়া

বিষয়ে বিস্তারিত ধারনা দিয়েছি। সেগুলোও পড়তে পারেন। তাহলে আপনার কাছে রোমানিয়ার যাবতীয় বিষয় পরিষ্কার হয়ে

যাবে। আপনি এই  লেখাগুলো পড়ার মাধ্যমে রোমানিয়া বাংলাদেশ থেকে কিভাবে যাবেন। রোমানিয়া থেকে কিভাবে

ইউরোপের দেশ ঢুকবেন। রোমানিয়ার বেতন কত হবে। যাবতীয় বিষয়ে, এক কথায় বলতে গেলে আপনি যদি আমার এই

সবগুলো লেখা পড়েন রোমানিয়া যাওয়ার বিষয়ে আপনার কোনো ধারনা আর বাকি থাকবে না।

রোমানিয়া থেকে ইউরোপের ইতালি কত কিলোমিটার?

প্রিয় বন্ধুরা অনেকেই মনে প্রশ্ন জাগে আমরা যদি রোমানিয়া থেকে ইতালি যেতে চাই। সে ক্ষেত্রে রোমানিয়া থেকে ইতালির

দূরত্ব কত কিলোমিটার। আবার অনেকেই এমনিতে জানার জন্য প্রশ্ন করে থাকেন রোমানিয়া থেকে ইতালির দূরুত্ব কত?

যার এই দুই দেশের দূরুত্ব জানতে চান তাদের উদ্দেশ্যে বলতেছি। আপনারা রোমানিয়ার রাজধানী থেকে ইতালিতর

রাজধানীর দূরুত্ব হচ্ছে মোট ১৯৮২ কিলোমিটার । যেটা গাড়িতে পাড়ি দিতে সময় লাগবে ২০ ঘন্টা ।

রোমানিয়া থেকে ইউরোপে  ইতালি কিভাবে যাওয়া যায়?

কি বন্ধুরা রোমানিয়া থেকে ইতালি যেতে চান? তবে আপনি দুই ভাবে রোমানিয়া থেকে ইতালিতে প্রবেশ করতে পারবেন

একটি হচ্ছে বৈধ ভাবে আরেকটি হচ্ছে অবৈধভাবে। তাই আজকের আলোচনার পর  আপনিই সিদ্ধান্ত নিবেন কিভাবে

আপনি রোমানিয়া থেকে ইতালি যাবেন।

বৈধভাবে রোমানিয়া থেকে  ইতালি প্রবেশ

যদি কেহ রোমানিয় থেকে ইতালিতে কাজের ভিসা বা বেড়ানোর ভিসায় যেতে চায় তবে যে সকল বিষয় গুলো খেয়াল রাখতে

হবে বা যে সকল প্রসেস করতে হবে তা আমি আজ বিস্তারিত আলোচনা করবো। যেহেতু পন্থাটি বৈধ তাই এই ভাবে

সকলকে যাওয়ার জন্য অনুরোধ করছি। কারণ জীবনের ঝুকি নেওয়া অনেক সময় বিপদের কারণ। বৈধ ভাবে যাওয়ার জন্য

যা করণীয়

১. রোমানিয়ায় কাজ করার বয়স বা সময় ১ বছরের অধিক হতে হবে।

২. রোমানিয়ায় আপনি যে কম্পানিতে কাজ করেছেন সেখানকার একটি এন.ও.সি( নো অবজেকসন সার্টিফিকেট)  থাকতে হবে।

৩. আপনার একটি সিভি থাকতে হবে।

৪. মেয়াদ সহ পাসপোর্ট থাকতে হবে।

উপরোক্ত কাগজপত্র থাকলেই আপনি ইতালিতে কাজ করার জন্য আবেদন করতে পারবেন। এবং সেখান থেকে কাজের

ভিসা পেলে আপনি রোমানিয়া থেকে ইতালি যেতে পারবেন।

অবৈধ ভাবে রোমানিয়া থেকে ইতালি

সবচেয়ে ভাল হয় আপনি যদি বৈধ পন্থাটি অলম্বন না করেন। কারণ অবৈধ ভাবে রোমানিয়া থেকে ইতালিতে যেতে অনেক

কাঠ খড় পোড়াতে হয়। থেকে যায় জীবনের রিক্স। তার পরেও যদি কোন কারণে রোমানিয়া থেকে ইতালিতে যাওয়ার

প্রয়োজন পড়ে তবে নিম্নোক্ত ভাবে আপনি যেতে পারেন।

  • বিশ্বস্ত ভাল দালাল খোঁজ করে বের করতে হবে। যারা পূর্বে ইতালিতে লোক নিয়েছে এমন মাধ্যম ।
  • সাথে পাসপোর্ট বা বৈধ কোন কাগজ পত্র রাখা যাবে না।
  • টাকা একটু বেশি দিয়ে যাবেন যাতে করে জীবনের রিক্স হয় এমন কোন ব্যবস্থায় যাবেন না।
  • যাওয়ার বিষযে দালালের সাথে আলোচনা হলে  ইতালি পৌছে দেয়া পর্যন্ত চুক্তি করতে হবে।
  • কোন কারণে রোমানিয়া বা অন্য পুলিশের হাতে ধরা পড়লে বৈধ ঠিকানা বলা যাবে না।

এভাবেই আপনি চলে যেতে পারেন রোমানিয়া থেকে স্বপ্নের দেশ ইতালিতে।

রোমানিয়া থেকে ফ্রান্স কত কিলোমিটার

অনেকেরই পছন্দের তালিকার দেশ ফ্রান্স। যারা বিশেষ করে রোমানিয়া থেকে ফ্রান্স যেতে চান তারা জানতে চান রোমানিয়া

থেকে ফ্রান্সের দূরুত্ব কত কিলোমিটার তাদের প্রশ্নের উত্তোরে আমি বলবো এই দেশ থেকে মোট দূরুত্ব হলো ২২৫৫.৮

কিলোমিটার । আর এই দেশ থেকে গাড়িতে যেতে চাইলে আপনার মোট সময় লাগবে ২২ ঘন্টা ৪৫ মিনিট।

 

রোমানিয়ার বিষয়ে খুবই গুরুত্বপুর্ণ একটি লেখা যেো আপনাদের পড়া প্রয়োজন কারণ এখানে যে বিষয় গুলো থাকছে

তাহলো :

শিরোনাম: বাংলাদেশ থেকে রোমানিয়া যাওয়ার উপায় এজেন্সি ফরম ও বয়স।

অলোচনার বিষয়: ১.রোমানিয়ার ভিসা প্রসেসিং এজেন্সি।
২. রোমানিয়ার ভিসা আবেদন ফরম।
৩.রোমানিয়া যেতে কত বয়স লাগে।
৪.রোমানিয়ার ভিসার দাম কত।
৫.রোমানিয়া ওয়ার্ক পারমিট ২০২২।
৬. বাংলাদেশ থেকে রোমানিয়া যাওয়ার উপায়।
৭. সরকারী ভাবে রোমানিয়া যাওয়ার উপায়
৮.রোমানিয়া ভিসা আবেদন ২০২২।
৯.রোমানিয়ার ভিসা চেক।

উপরোক্ত বিষয় গুলো পড়ার জন্য যে কোন একটিতে ক্লিক করুন আর পড়ে নিন আপনার প্রয়োজনীয় প্রশ্নের উত্তরটি।

 

রোমানিয়া থেকে ফ্রান্স কিভাবে যাওয়া যায়

এই দেশ থেকে অন্যান্য দেশে যাওয়ার উপায় মূলত একই । তাই যারা রোমানিয়া থেকে ফ্রান্স যেতে চাচ্ছেন । তাদের

উদ্দেশ্য বলতে চাই আপনি যদি  রোমানিয়া থেকে প্রথমে হাঙ্গেরীতে যেতে হবে আর আপনি হাঙ্গেরী যাওয়ার জন্য অনেক

দালাল পাবেন আপনি শুধু খোঁজ খবর নিবেন দালালটি বিশ্বস্ত কিনা। তার পর আপনি এই দেশ থেকে খুব সহজেই ফ্রান্সে

চলে যেতে পারবেন। এছাড়াও আপনি সরাসরি ফ্রান্সে যাওয়ার জন্য চুক্তি করতে পারেন তারা আপনাকে সরাসরি ফ্রামন্সে

পৌছে দিবে।

বৈধ ভাবে রোমানিয়া থেকে ইউরোপের ফ্রান্সে প্রবেশ

যদি রোমানিয়া আপনার কাজের বয়স সর্বনিম্ন এক বছর হয় । তবে আপনি কিছু কাগজ পত্র সংগ্রহ করে চলে যেতে পারেন

ফ্রান্সে। আর তার জন্য যে সকল কাগজ পত্র লাগবে তাহলো নিম্ন রুপ। আপনি সাধারণত দুধরনের ভিসা পেতে পারেন

একটি কাজের ভিসা আারেকটি হলো বেড়ানোর ভিসা।

  • আপনি যে কম্পনানিতে কাজ করতে আছেন সেই কম্পনির একটি এন.ও,সি ( নো অবজেশন সার্টিফিকেট)
  • ৬ মাসের ব্যাংক হিসাব আছে এই রকম একটি ব্যাংকের ট্রান্জেকশন রিপোর্ট।
  • আপনি যদি কাজের জন্য যান তবে যে কম্পানিতে কাজ পেয়েছেন তাদের অফার লেটার আর যদি আপনি বেড়ানোর উদ্দেশ্য যান তবে যার কাছে বেড়াতে যাচ্ছেন তার নাম ঠিকানা।
  • কম্পানি থেকে ছুটির চিঠি।
  • সাথে আপনার পাসপোর্ট লাগবে।
  • টি.আর.সি কার্ডের একটি ফোট কপি লাগবে।
  • একটি কভার লেটার লাগবে।

আশাকরি ‍উপরোক্ত কাগজ পত্র ঠিক থাকে তবে আপনি লিগান ওয়ে অন্য সেনজেন ভূক্ত যে কোন দেশে চলে যেতে

পারবেন। তার জন্য একটু ধৈর্য্য ধারণ করা দরকার।

রোমানিয়া থেকে পর্তুগালের দূরুত্ব

অনেকে জানতে চান রোমানিয়া থেকে পর্তুগালের দূরুত্ব কত? অনেকেই আবার নেটে খোঁজ করে থাকেন । তাদের এই

প্রশ্নের উত্তোরে বলা যে রোমানিয়া থেকে পর্তুগালের মোট দূরুত্ব হচ্ছে ৩৫৮৭.৮ কিলোমিটার। আর আপনি যদি

গাড়ী নিয়ে যেতে চান তাহলে আপনার মোট সময় লাগবে ৩৫ ঘন্টা।

আরেকটি গুরুত্বপূর্র্ণ লেখা: বাংলাদেশ থেকে রোমানিয়া যেতে কত টাকা লাগে? এই আলোচনার মধ্যে আপনি পেয়ে যাবেন

-রোমানিয়া যেতে কত টাকা লাগে?, বাংলাদেশ থেকে রোমানিয়ার ভিসা,বাংলাদেশ থেকে রোমানিয়ার দূরুত্ব কত

কিলোমিটার,বাংলাদেশ থেকে রোমানিয়ার বিমান ভাড়া,বাংলাদেশ থেকে রোমানিয়ার ওয়ার্ক পারমিট,রোমানিয়ার বেতন

কত। এগুলো পড়ার জন্য

( এখানে ক্লিক করুন )

রোমানিয়া থেকে পর্তুগালে যাওয়ার উপায়

এই দেশ থেকে পর্তুগালে যাওয়া মোটামুটি একই নিয়ম। তবে অন্যান্য দেশের তুলনায় এই দেশে যাওয়া একটু সহজ। কারণ

অন্যান্য দেশের তুলনায় এই দেশে মানুষ জন তুলনা মূলক কম যায়। যার ফলে এখানে কাজের লোকের খুব বেশি চাহিদা ।

বিশেষ করে গ্রীস্মের সময় প্রচুর কাজের লোক লাগে। তখন দেখা যায় তারা প্রথমে ইউরোপের বিভিন্ন দেশ থেকে লোক নিয়ে

থাকে তাই আপনি যদি রোমানিয়ার পাসপোর্ট হাতে পেয়ে থাকেন তাহলে উপরের নিয়ম গুলোর মত এই পদ্ধতিতে আবেদন

করলেই খুবই সহজে ভিসা পেয়ে যাবেন। তাছাড়াও পালিয়ে যাওয়ার জন্যতো বিভিন্ন দালালের মাধ্যম রয়েছে।

 রোমানিয়া থেকে ইউরোপে  যাওয়ার উপায় শেষ কথা

আশাকরি আপনাদের উপরের রোমানিয়া থেকে ইউরোপে তথ্য মূলক লেখাটি পড়ে অনেক উপকারে আসবে। তবে

আপনাদের একটি অনুরোধ করি যেখানেই যান নিজের জীবনকে আকে প্রাধান্য দিবেন। কারণ অন্যর কাছে আপনি শুধু

একজন মানুষ মাত্র তাদের কাছে আপনি মরে গেলে তাদের কিছু যায় আসে না। কিন্তু আপনি আপনার পরিবারের মানুষের

কাছে মহা মূল্যবান। কারণ আপনার কিছু হলে আপনার পরিবারের লোকজন সেই কষ্ট সহ্য করতে অনেক বেশি মূল্য দিতে

হবে। কারণ আপনার পরিবার আপনাকে অনেক বেশি ভালবাসে যা অন্য কেউ ভালোবাসে না। যদি আমার লেখাটি

ভালোলেগে থাকে তবে শেয়ার করার জন্য অনুরোধ রইল । অনেক অনেক ধন্যবাদ কষ্ট করে লেখাটি পড়ার জন্য।

আমাদের আরো অনেক গুরুত্বপূর্ণ পোষ্ট আছে যেগুলো পড়তে পারেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.